অনান্য

চুলায় ভাতের পাতিল রেখেই ফাঁসি নিলেন ৩ সন্তানের মা

টাঙ্গাইলে রান্না ঘরের চুলায় ভাতের পাতিল রেখেই ফাঁসিতে ঝুলে আত্মহত্যা করেছেন মোছা: রেনু বেগম (৪৯) নামে এক নারী।

মঙ্গলবার (৯ আগস্ট) সকালে ভূঞাপুর উপজেলার অলোয়া ইউনিয়নের ভারই গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। তিনি রহিজ উদ্দিনের স্ত্রী।

নিহতের চাচাতো ভাই জিন্নাহ আলী বলেন, আমার বোন রেনু বেগম ৪ বছর ধরে মানষিক রোগে ভুগছিলেন। সোমবার (৮ আগস্ট) রহিজের মৃত. বোনের জানাজায় গিয়েছিল রহিজ, তার দুই ছেলে ও মেয়ে। বাড়িতে একাই ছিলেন রহিজের স্ত্রী। পরে মঙ্গলবার সকালে ঘরের ধর্ণার সাথে ফাঁসিতে ঝুলে আত্মহত্যা করেন।

নিহতের মা বলেন, মেয়েটি মানুষিকভাবে ভারসাম্যহীন রোগী ছিল। মাঝে মধ্যে নিজের শরীরে নিজেই আঘাত করতো। এ নিয়ে চিকিৎসা করাতে চাইলেও সে চিকিৎসা করতে চাইতেন না। আজ সকালে রান্না ঘরে ভাত রান্না করছিল। একপর্যায়ে চুলায় ভাতের পাতিল রেখেই পরিবারের লোকজনদের চোঁখ ফাঁকি দিয়ে ফাঁসিতে ঝুলে আত্মহত্যা করে রেনু।

ভূঞাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফরিদুল ইসলাম আত্মহত্যার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

Related Articles

Back to top button