আলোচিত সংবাদ

সেই ঘটনায় বেরিয়ে এলো নতুন তথ্য, মাঝে মাঝে থানায় আসত ঐ ছাত্রীর মা

দিনের পর দিন বাবার অসামাজিক কাজের সাক্ষী ও তার অত্যাচার শিকার হয়ে মানসিকভাবে বিকারগ্রস্ত হয়ে গত শনিবার (২৭ আগস্ট) রাজধানী ঢাকার দক্ষিণখানে দশ তলা একটি ভবনের ওপর থেকে লাফ দিয়ে আ’ত্ম’হ’ন’ন করেন সানজানা মোসাদ্দিকা নামে ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষার্থী। এ ঘটনায় শাহীন ইসলামের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন নি’হতে’র মা।

পলাতক আসামি বাবা শাহীন ইসলামকে ধরতে মাঠে নেমেছে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী।এদিকে মহাখালীতে ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে মানববন্ধন করেছে নি’হ’ত ছাত্রের সহপাঠীরা।শনিবার (২৭ আগস্ট) দক্ষিণখান মোল্লারটেক এলাকার বাসিন্দা ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের তৃতীয় সেমিস্টারের ছাত্রী সানজানা বাসার বাড়ির ছাদ থেকে লাফ দেন। তাকে উদ্ধার করে প্রথমে স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। পরে হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

তার মৃ”ত্যু’তে ক্ষু’ব্ধ সহপাঠীরা মহাখালীর ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে মানববন্ধন করেছে।এক শিক্ষার্থী বলেন, আমাদের কয়েকজন বন্ধু সেখানে গেছে। শরীরে দাগ দেখে বোঝা যায় সহিংসতা চালানো হয়েছে।এ ঘটনায় ‘নিহ’তে’র বাবাকে অভিযুক্ত করে মামলা করেছেন তার মা। দক্ষিণখান থানায় দায়ের করা মামলার আসামি বাবা শাহীন ইসলামকে অচিরেই গ্রেপ্তারের কথা জানায় পুলিশ।ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের মুখপাত্র ফারুক হোসেন বলেন, সু’ই’সাই’ডাল নোটে ঘটনার কারণ লেখা হয়েছে।

সে তার বাবাকে দোষ দেয়। এ ঘটনায় দক্ষিণখান থানায় মামলা হয়েছে। তার বাবার বিরুদ্ধে আ’ত্ম’হ’ন’ন’য় প্ররোচনার অভিযোগ আনা হয়েছে। আমরা তার বাবাকে গ্রেফতার করব। মামলাটি তদন্ত করে আদালতে প্রতিবেদন দাখিল করব। বাবা ও মায়ের মধ্যে দীর্ঘদিনের বিরোধের জের ধরে তার বাবা প্রায়ই মাকে মা’র’ধর করত।

সেই বিষয়টি নিয়ে ভু’ক্তভো’গী’র মা থানায় মাঝে মাঝে আসত। ইতিপূর্বে থানায় জিডিও করেছিল। সেই বিষয়টা নিয়ে পুলিশ তাদের পারিবারিক বিরোধ মিটাতে পুলিশ কাজ করেছিল।এদিকে মৃতদেহ উদ্ধারের পর ম’য়না’ত’দন্ত শেষে লাশ পরিবারের কাছে হস্থান্তর করা হয়েছে বলেও সংবাদ মাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন তিনি। এ ঘটনায় অভিযুক্ত শাহিনকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

Related Articles

Back to top button