আলোচিত সংবাদ

গার্মেন্টস কর্মীকে ধর্ষণের পর নির্যাতন, মৃত ভেবে ফেলে গেল ব্রিজের নিচে

সাভারে ১৭ বছর বয়সী এক গার্মেন্টস কর্মীকে ধর্ষণের পর নির্যাতন করা হয়। পরে মৃত ভেবে তাকে ব্রিজের নিচে ফেলে যায় ধর্ষক ও তার বন্ধুরা।বুধবার (৩১ আগস্ট) সকালে সাভার পৌরসভা এলাকার ব্যাংক টাউন থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়।এর আগে, মঙ্গলবার রাতে সাভার পৌর এলাকার ব্যাংক টাউন কর্ণপাড়া ব্রিজের নিচে ধর্ষণের ঘটনা ঘটে। পরে রাতেই সাভার মডেল থানায় দু’জনের নাম উল্লেখ করে মামলা করেন ভুক্তভোগী।

অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, ধর্ষণের শিকার কিশোরী উলাইলের পাগলার মোড় এলাকার মিনিনিয়া গার্মেন্টসের হেলপার হিসেবে কর্মরত ছিলেন। মঙ্গলবার রাত ১০টায় তাকে মোবাইল ফোনে ব্যাংক টাউন কর্ণপাড়া ব্রিজের নিচে ডেকে নেন তার পূর্ব পরিচিত আবিদ খাঁন নামে এক যুবক। ওই সময় তাকে বিয়ের প্রলোভন

দেখিয়ে আবিদ জোর পূর্বক ধর্ষণ করেন। পরে ভুক্তভোগী তখনি আবিদকে বিয়ের কথা বললে তিনি গণি নামের এক যুবক ও আরও অজ্ঞাত দু’যুবককে মোবাইল ফোনে ঘটনাস্থলে ডেকে নিয়ে আসেন। এরপর ওই গার্মেন্টস কর্মীকে এলোপাতাড়িভাবে পিটিয়ে আহত করে মৃত ভেবে সেখানে ফেলে পালিয়ে যান তারা।

পরে রাত একটার দিকে ওই গার্মেন্টস কর্মীর (কিশোরী) অবস্থান জানতে পারে স্থানীয়রা। সে সময় জরুরি সেবা ৯৯৯ নাইনে ফোন করলে সাভার মডেল থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে তাকে উদ্ধার করে।সাভার মডেল থানার পরিদর্শক (ওসি, তদন্ত) মমিনুল ইসলাম বলেন, এ ঘটনায় সকালে ওই কিশোরী আবিদ খাঁনকে প্রধান আসামি, গণি নামের আরেক যুবককে দ্বিতীয় এবং অজ্ঞাত আরও দু’জনকে আসামি করে সাভার মডেল থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করেনতিনি আরও বলেন, ইতোমধ্যে আবিদ ও গণিকে গ্রেফতারও করা হয়েছে। তাদের আদালতে পাঠানোর প্রক্রিয়া চলছে

Related Articles

Back to top button